চট্টগ্রাম বন্দরে নতুন চেয়ারম্যান আগামীকাল দায়িত্ব নিচ্ছেন রিয়ার এডমিরাল এম শাহজাহান

Dhaka Post Desk

বিশেষ প্রতিনিধি

18 October, 2021 0 Views

0

বিশেষ প্রতিনিধি

আগামীকাল রবিবার চট্টগ্রাম বন্দরে নতুন চেয়ারম্যান হিসেবে যোগ দিচ্ছেন রিয়ার এডমিরাল এম শাহজাহান। এর আগে ২০২০ সালের ৯ এপ্রিল তিনি মোংলা বন্দর চেয়ারম্যান হিসেবে কাজ করছিলেন। বদলি হয়ে তিনি নতুন কর্মস্থলে আসছেন।

চট্টগ্রাম বন্দরের বর্তমান চেয়ারম্যান এস এম আবুল কালাম আজাদ আগামীকাল রবিবার আনুষ্ঠানিকভাবে দায়িত্ব হস্তান্তর করবেন। এরপর তিনি মুল কর্মস্থল নৌ বাহিনীতে যোগ দিবেন।

জানতে চাইলে চট্টগ্রাম বন্দরের নতুন চেয়ারম্যান রিয়ার এডমিরাল এম শাহজাহান শিপিং এক্সপ্রেসকে বলেছেন, আমি বৃহষ্পতিবার বন্দর যোগ দিয়েছি। আগামীকাল রবিবার দায়িত্ব বুঝে নিবো। আমি এর আগে দীর্ঘদিন চট্টগ্রাম বন্দরের সদস্য (হারবার মেরিন) পদে কর্মরত থেকে অনেক গুরুত্বপূর্ণ প্রকল্প বাস্তবায়ন করেছি। আশা করছি এবার সবার সহযোগিতায় নতুন উদ্যমে এগিয়ে নিতে পারবো দেশের প্রধান চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দরকে।

চট্টগ্রাম বন্দরের নবনিযুক্ত চেয়ারম্যান রিয়ার এডমিরাল এম শাহজাহান ১৯৮৪ সালে বাংলাদেশ নৌবাহিনীতে যোগদান করেন। ১৯৮৭ সালে তিনি কমিশন্ডপ্রাপ্ত হন। দীর্ঘ চাকরি জীবনে তিনি বাংলাদেশ নৌবাহিনীর বিভিন্ন গুরত্বপূর্ণ দায়িত্বে নিয়োজিত ছিলেন। তিনি মিরপুরে জাতীয় ডিফেন্স কলেজ ও ডিফেন্স সার্ভিসেস কমান্ড অ্যান্ড স্টাফ কলেজ থেকে স্নাতক ১৯৮৭ সালের ১ জানুয়ারি বাংলাদেশ নৌ বাহিনীতে কমিশন লাভ করেন। তিনি জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্টাডিজ ডিফেন্সে স্নাতকোত্তর এবং স্ট্র্যাটেজি অ্যান্ড ডেভেলপমেন্টে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অর্জন করেন।

এম শাহজাহান ‘পোর্ট অফ শিপিং এবং শিপিংয়ের বাংলাদেশের অর্থনৈতিক বিকাশ’ বিষয়ক থিসিস নিয়ে গবেষণা করেন। তার কর্মজীবনে দেশে এবং বিদেশে বেশ কয়েকটি পেশাদার কোর্স করেন ও বেশ কয়েকটি যুদ্ধজাহাজের কমান্ড দিয়েছিলেন। তিনি নৌ সদর দফতরে ডিরেক্টর ব্লু ইকোনমি, ডেপুটি ড্রাফটিং কমান্ডার, স্টাফ অফিসার (নৌ নিয়োগ) -১ এবং নৌ সদর দফতরে বিভিন্ন অধিদফতরে কর্মচারী হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছেন।

ডেপুটেশন ছাড়াও তিনি নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়ের অধীনে চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষের সদস্য (হারবার ও মেরিন), জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রনালয়ে ব্লু ইকোনমি সেলের সদস্য এবং স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কোস্টগার্ড সদর দফতরে বঙ্গদেশ কোস্ট গার্ডের উপ-মহাপরিচালক হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন।

জাতিসংঘ মিশনের অধীনে সামরিক পর্যবেক্ষক দলের টিম লিডার এবং হাইতিতে জাতিসংঘ মিশনে ব্যানসন -২ এ জাতিসংঘের শান্তিরক্ষী কর্মকর্তা হিসাবে কাজ করেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *