চট্টগ্রামে রেলের জমিতে আইসিডি বানাচ্ছে সাইফ পাওয়ারটেক

Dhaka Post Desk

বিশেষ প্রতিনিধি

4 December, 2021 23 Views

23

হালিশহরে রেলওয়ের ২১ একর জমির পর নতুন একটি কন্টেইনার ডিপো নির্মান করতে যাচ্ছে চট্টগ্রাম বন্দরের টার্মিনাল অপারেটর সাইফ পাওয়ারটেক। এতে বিনিয়োগ করা হবে ৩০০ কোটি; চুক্তির পর ডিপোর অপারেশনাল কার্যক্রম শুরু করতে সাইফ পাওয়ারটেক সময় পাবে ২ বছর। আর এই ডিপোতে বছরে এক লাখ একক কন্টেইনার হ্যান্ডলিং করার আশা কর্তৃপক্ষের।

আগামী ১৯ অক্টোবর ঢাকায় বাংলাদেশ রেলওয়ের প্রতিষ্ঠান কন্টেইনার কোম্পানি অব বাংলাদেশের সাথে সাইফ পাওয়ারটেকের চুক্তি স্বাক্ষর হচ্ছে। হালিশহর এলাকায় রেলওয়ের চট্টগ্রাম গুডস পোর্ট ইয়ার্ডের পার্শ্বে রেলওয়ের মালিকানাধীন ২১ দশমিক ২৯ একর জায়গায় নির্মিত হবে এই আইসিডি।

চুক্তির শর্ত অনুযায়ী, সাইফ পাওয়ারটেক আইসিডি পরিচালনা, ফি আদায় সহ সকল ধরনের কার্যক্রম পরিচালনা করবে। ২০ বছর পর সম্পূর্ণ চালু অবস্থায় আইসিডি সিসিবিএলের কাছে হস্তাস্তর করবে সাইফ পাওয়ারটেক। পরবর্তীতে আবারো টেন্ডারের মাধ্যমে পরিচালনাকারী সংস্থা নির্ধারণ করা হবে।

চুক্তির আগে আনুষ্ঠানিকভাবে উদৃত হয়ে মন্তব্য করতে চাননি সাইফ পাওয়ারটেকের কেউ। তবে এক শীর্ষ কর্মকর্তা বলেন, এনসিটি, সিসিটি এবং ঢাকা আইসিডি পরিচালনার অভিজ্ঞতায় বলতে পারি আমরা এই আইসিডিতে সবচে আধুনিক যন্ত্রপাতি ব্যবহার করবো। আর এই কারণেই বছরে প্রায় ১ লাখেরও বেশি কন্টেইনার হ্যান্ডলিং করা যাবে। এতে বছরে কমপক্ষে ১০০ কোটি টাকার ব্যবসা হবে। কর্মসংস্থান হবে প্রায় ৫০০ লোকের।

জানা গেছে, রেলপথে কন্টেইনার পরিবহন বাড়াতে ২০১৬ সালের ১৭ মে ‘কন্টেইনার কোম্পানি অব বাংলাদেশ’ নামে একটি স্বতন্ত্র কোম্পানি গঠন করে রেলপথ মন্ত্রণালয়। চট্টগ্রামে আইসিডি নির্মাণের জন্য এর অনুকূলে ২১ দশমিক ২৯ একর জায়গা বরাদ্দ দেয় রেলওয়ে। ওই জায়গায় আইসিডি নির্মাণের জন্য চলতি বছরের ৩ ফেব্রুয়ারি কনস্ট্রাকশন অব আইসিডি কাম অফডক থ্রো ডিবিএফওএমটি মুডে টেন্ডার ডাকা হয়। এতে সাইফ পাওয়ারটেককে নির্বাচিত হয়।

‘কন্টেইনার কোম্পানি অব বাংলাদেশ’ ব্যবস্থাপনা পরিচালক বেলাল উদ্দিন বলেন, আইসিডি নির্মাণের জন্য বিদেশী চারটি প্রতিষ্ঠান সহ মোট ১৪টি প্রতিষ্ঠান শিডিউল কেনে। অভিজ্ঞতা না থাকায় শিডিউল কেনার পরও ১৩টি প্রতিষ্ঠান জমা দেয়নি।

তিনি বলেন, চুক্তির শর্ত অনুযায়ী আইসিডির নির্মাণ ও পরিচালনা করবে সাইফ পাওয়ারটেক। সাইনিং মানি হিসেবে সিসিবিএলকে ৭ কোটি টাকা দেবে। আইসিডি পরিচালনা করে যে লাভ হবে তার ২১ দশমিক ৫০ শতাংশ সিসিবিএলকে দেবে সাইফ পাওয়ারটেক। এতে বিনিয়োগ হবে প্রায় ৩০০ কোটি টাকা। আধুনিক ইকুইপমেন্ট ব্যবহার করলে বছরে ১ লাখেরও বেশি কন্টেইনার হ্যান্ডলিং করা সম্ভব এই আইসিডিতে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *